পঞ্চম হিজরির লেখা কোরআনের তাফসির

পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মৌরিতানিয়া। আফ্রিকার একাদশতম বৃহত্তর রাষ্ট্র এটি। একসময় ফরাসি উপনিবেশ ছিল। দেশটির প্রায় শত ভাগ লোকই মুসলমান।

বিশ্বে দাসত্ব প্রথা আনুষ্ঠানিকভাবে বিলোপে মৌরিতানিয়াই হচ্ছে সর্বশেষ রাষ্ট্র। দেশটির পুরো নাম, মৌরিতানিয়া ইসলামি প্রজাতন্ত্র। রাজধানীর নাম নুয়াকশুত।

এক লাখ ৩০ হাজার বর্গকিলোমিটার দেশের দাপ্তরিক ভাষা আরবি। মৌরিতানিয়া ফ্রান্স থেকে ১৯৬০ সালে স্বাধীনতা অর্জন করে।

সেই মৌরিতানিয়ার ভ্যালিটা শহরের এক লাইব্রেরিতে ২৫ হাজার হস্তলিখিত ও প্রাচীন গ্রন্থের বিশাল সমাহার রয়েছে। এ সব গ্রন্থের মধ্যে প্রাচীনতম গ্রন্থ হচ্ছে- কোরআনে কারিমের একটি তাফসির। যা পঞ্চম হিজরিতে লেখা হয়েছে। আরবিতে লেখা তাফসিরটি দেখতে প্রতিদিন অসংখ্যা দর্শনার্থী ও গবেষক লাইব্রেরিতে ভিড় জমান।

তবে, ওই তাফসিরটির মূল লেখক কে এটি নিয়ে কিছুটা বিভ্রান্তি রয়েছে। এখন পর্যন্ত মূল লেখকের নাম উদ্ধার করা যায়নি। এটা নিয়ে গবেষণা চলছে। তবে লাইব্রেরিতে যে সব প্রাচীন পাণ্ডুলিপি রয়েছে, তার অধিকাংশই ইতিহাস ও সভ্যতা বিষয়ক। লাইব্রেরিটি ১৯৯০ সালে প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। এই লাইব্রেরিটি বিশ্বব্যাপী গবেষকদের জন্য একটি রেফারেন্স পয়েন্ট হিসেবে প্রসিদ্ধ।

ভ্যালিটা রাজধানী নুয়াকশুতের ৩০০ কিলোমিটার দক্ষিণ পূর্বে অবস্থিত।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: