আল্লামা শফীর ইন্তেকালে ইসলামী অঙ্গনের শোক

হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমীর, বাংলাদেশ কওমী মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড বেফাকের সভাপতি, আল হাইয়াতুল উলইয়া লিল জামিয়াতিল কওমিয়ার চেয়ারম্যান ও হাটহাজারী মাদরাসার সাবেক মহাপরিচালক, খলীফায়ে মাদানী আল্লামা শাহ আহমদ শফীর ইন্তেকালে পৃথক পৃথক শোকবার্তায় গভীর শোক প্রকাশ করেছে দেশের ইসলামী দলগুলো।

এক শোকবার্তায় বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আমীর আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী বলেছেন, আল্লামা আহমদ শফী ছিলেন, ভারত স্বাধীনতা আন্দোলনের সিপাহসালার সায়্যেদ হুসাইন আহমাদ মাদানী রহ. এর অন্যতম খলিফা ও উপমহাদেশের প্রখ্যাত হাদিস বিশারদ। তিনি ছিলেন নাস্তিক মুরতাদ ও বাতিল বিরোধী আন্দোলনের অগ্রনায়ক। আল্লামা আহমদ শফি ছিলেন মুসলিম উম্মাহর একজন অন্যতম রাহবার ও ওলামায়ে কেরামের ঐক্যের প্রতীক। কুরআন-হাদিস প্রচার-প্রসারে তাঁর অপরিসীম ত্যাগ ও অবদান জাতির কাছে চির স্মরণীয় হয়ে থাকবে।

এছাড়াও শোক পাঠান বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের মহাসচিব মাওলানা হাবীবুল্লাহ মিয়াজী, নায়েবে আমির মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, সাংগঠনিক সম্পাদক মুফতী সুলতান মহিউদ্দীন, দপ্তর সম্পাদক মাওলানা সানাউল্লাহ হাফেজ্জী ও প্রচার সম্পাদক মাওলানা সাইফুল ইসলাম সুনামগঞ্জী।

বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের আমীর শায়খুল হাদীস আল্লামা ইসমাঈল নূরপুরী ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক বলেন, শায়খুল ইসলাম আল্লামা হোসাইন আহমদ মাদানীর অন্যতম খলিফা আল্লামা আহমদ শফী ছিলেন মুসলিম উম্মাহর আধ্যাত্বিক রাহবার।তিনি ছিলেন উপমহাদেশের প্রখ্যাত হাদীস বিশারদ। দীর্ঘদিন যাবত তিনি বোখারী শরীফের অধ্যাপনার দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি নাস্তিক মুরতাদ বিরোধী আন্দোলনে আপসহীন ভূমিকা রাখেন। জগতবিখ্যাত একজন শিক্ষাবিদ হওয়ায় দেশ বিদেশে রয়েছে তার হাজার হাজার ছাত্র, ভক্ত ও মুরিদান।

দেশের প্রাচীন ইসলামী রাজনৈতিক সংগঠন নেজামে ইসলাম পার্টির আমীর আল্লামা সরওয়ার কামাল আজিজী, সিনিয়র নায়েবে আমীর মাওলানা আব্দুল মাজেদ আতহারী, মহাসচিব মাওলানা মুসা বিন ইযহার ও ঢাকা মহানগর আমীর মাওলানা হাফেজ আবু তাহের খান বলেন, আল্লামা শাহ আহমদ শফী একটি বর্ণাঢ্য ইতিহাসের নাম। বাংলাদেশের ইসলামী আকাশে এক উজ্জল নক্ষত্রের নাম। তাঁর ইন্তেকালে জাতি একজন প্রকৃত অভিভাবককে হারালো। তাঁর ইন্তেকালে ইসলামী জগতের যে ক্ষতি হয়ে গেল তা কখনো পুষিয়ে নেবার মত নয়।

আল্লামা মামুনুল হক বলেন, হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ এর আমির, হাটহাজারী মাদরাসার মুহতামিম আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ. আজ আমাদের ছেড়ে চলে গেছেন প্রভূর সান্নিধ্যে। আমি তাঁর রুহের মাগফেরাত ও উচ্চ মাকামের জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চাই। ইন্তেকাল পরবর্তী কাজগুলো সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হোক সে কামনা করি। তিনি দেশ-জাতি ও উম্মতের জন্য যে খেদমাত ও কাজ করে গেছেন সেটি উম্মতের জন্য অবিস্মরণীয় হয়ে থাকবে। বিগত শতাব্দীকাল যাবত তাঁর যে খেদমাত বা তাঁর যে অবদান রয়েছে সেটি বাংলাদেশের জন্য অতুলনীয়। এ জাতী ও এদেশ তাঁর নিকট চির কৃতজ্ঞ থাকবে।

এছাড়াও শোক জানিয়েছে ইসলামী যুব আন্দোলন, রাবেতাতুল উম্মাহ বাংলাদেশের সভাপতি মাওলানা এনামুল হক মূসা, আল্লামা সুলাইমান নোমানী, মুফতি রুহুল আমীন, উসামা আমীন, গওহরডাঙ্গা মাদরাসা, মাওলানা শামছুল হক, মাহাসচিব, কওমি মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড গওহরডাঙ্গা, মুফতি মোহাম্মদা তাসনীম, চেয়ারম্যান, কওমি মঞ্চ, মাওলানা ঝিনাত আলী, মহাসচিব, তানজিমুল মুদাররিসিন বাংলাদেশ, মাওলানা আজিজুর রহমান, ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারী জেনারেল, খাদেমুল ইসলাম বাংলাদেশ, ফরিদপুর উলামা পরিষদ ও কালিয়াকৈর উলামা পরিষদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: