ওমরা পালনকারীরা সৌদি আরবের দর্শনীয় স্থানে যেতে পারবেন

এখন থেকে পবিত্র ওমরা পালনকারীরা সৌদি আরবে অবস্থিত বিভিন্ন ঐতিহাসিক স্থাপনা ও দর্শনীয় স্থানে যেতে পারবেন।

বুধবার (২৩ জানুয়ারি) ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব আব্দুল্লাহ আরিফ মোহাম্মদ স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ২০১৯ সাল থেকে পবিত্র ওমরার যাত্রীরা সৌদি আরবের বিভিন্ন দর্শনীয় স্থান ভ্রমণ করতে পারবেন মর্মে রাজকীয় সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে (বাংলাদেশকে) অবহিত করা হয়েছে। তবে এসব স্থান ভ্রমণ করতে হলে, সৌদি আরব সরকার কর্তৃক অনুমোদিত ট্রাভেল এজেন্সির মাধ্যমে ভ্রমণ করতে হবে।

পৃথিবীর ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের কাছে সৌদি আরব সব সময়ই একটি কাঙ্খিত গন্তব্য। ইসলামের নবী হজরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের পবিত্র জন্মভুমি ও ইসলাম ধর্মের উৎপত্তিস্থল। এ ছাড়া পবিত্র মক্কা-মদিনা এবং পবিত্র হজ ও উমরার মতো গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলোতো রয়েছেই।

সৌদি আরবে অনেকগুলো জাঁকজমকপূর্ণ শহর রয়েছে। এতদিন শুধু ধর্মপ্রাণ মানুষ হজ-ওমরা পালন আর কর্মজীবীরা কাজের প্রয়োজনে সৌদি আরব যেতেন। বর্তমানে অবস্থা অনেকটাই বদলে গেছে। সৌদি আরবকে গড়ে তোলা হচ্ছে, বিশ্বের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র হিসেবে। তাই সৌদি কর্তৃপক্ষ পর্যটকদের ভিসা দিচ্ছে, সেই সঙ্গে ওমরা পালনকারীদের বিভিন্ন দর্শনীয় স্থান পরিদর্শনের সুযোগ দিচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: